menu

আর্থার শোপেনহাওয়ার

  • ঢাকা , বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯
image

জন্ম : ২২ ফেব্রুয়ারি, ১৭৮৮

মৃত্যু : ২১ সেপ্টেম্বর, ১৮৬০

শোপেনহাওয়ার জার্মান দার্শনিক। তিনি প্রথাবদ্ধ পড়াশোনায় মনোযোগী ছিলেন না। ১৮১১ সালে মেডিকেল-ছাত্র হিসেবে Gottingen বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হলেও দর্শনশাস্ত্র পড়ার জন্য বার্লিনে চলে যান। ১৮৩১ সাল থেকে তিনি ফ্রাঙ্কফুটে নির্জনবাস শুরু করেন।

শোপেনহাওয়ার দুঃখবাদী ধারণার প্রবর্তক। দর্শনচর্চার ক্ষেত্রে তিনি নিৎসে ও ফ্রয়েড দ্বারা নানাভাবে প্রভাবিত হন। তার নীতিশাস্ত্র অন্যের ব্যথায় সমবেদনা জ্ঞাপনের ওপরই প্রতিষ্ঠিত। তার দর্শনের মূল উপজীব্য- জীবন-জগৎ সম্পর্কে অবিশ্বাস ও হতাশা।

শোপেনহাওয়ার মানুষের বুদ্ধির পরিবর্তে ইচ্ছাশক্তির ওপর বেশি গুরুত্বারোপ করেন। তার দর্শন হচ্ছে, প্রকৃত পরমসত্তা একটি অন্ধ প্রেরণাদায়ক শক্তি, যা ব্যক্তি বা ব্যষ্টিতে ইচ্ছারূপে প্রকাশ পায়। ব্যক্তিকে এই অন্ধ ইচ্ছাশক্তিই নিয়ন্ত্রণ করে। নানা রকম ইচ্ছাশক্তির দ্বারা ব্যক্তি তাড়িত হয়। সব ইচ্ছার তুষ্টি বিধান করতে না পারলেই ব্যক্তিকে দুঃখময় জীবনযাপন করতে হয়।

তার মতে দুঃখ থেকে মুক্তি পাওয়ার একমাত্র পথ হচ্ছে- ব্যক্তির ইচ্ছাকে দমন করা এবং লোভ-তৃষ্ণা, কামনা-বাসনার গ্রাস থেকে নিজেকে মুক্ত রাখা। বৌদ্ধ দর্শনের নির্বাণতত্ত্বের সঙ্গে তার এই তত্ত্ব তুলনীয়।

ইন্টারনেট