menu

দ. সুদানে দেড় শতাধিক নারী-শিশু ধর্ষণের শিকার : জাতিসংঘ

সংবাদ :
  • সংবাদ ডেস্ক
  • ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০১৮
image

দক্ষিণ সুদানে গত ১২ দিনে ধর্ষণ বা যৌন নিগ্রহের শিকার হওয়া ১৫০ জনেরও বেশি নারী সাহায্যের আবেদন জানিয়েছেন। গত সোমবার জাতিসংঘের তিনটি সংস্থার প্রধান এ কথা জানিয়েছেন। এএফপি।

গত সপ্তাহে ডক্টর্স উইদআউট বর্ডার্স (এমএসএফ) জানায়, আন্তর্জাতিক সহায়তা সংস্থাগুলোর জরুরি খাদ্য বিতরণ কেন্দ্র থেকে খাবার আনতে যাওয়ার পথে ১২৫ তরুণী ও কিশোরী ধর্ষিত হয়েছে। সংস্থাটি আরও জানিয়েছে, ধর্ষণ ছাড়াও অনেক নারীকে লাঠি ও রাইফেলের বাঁট দিয়ে পেটানো হয়। তাদের জামা, জুতা, অর্থ ও রেশন কার্ডও ছিনিয়ে নেয়া হয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় সোমবার জাতিসংঘের শিশু বিষয়ক সংস্থা ইউনিসেফের প্রধান হেনরিয়েটা ফোর, ইউএনএইড প্রধান মার্ক লোকক এবং ইউএন পপুলেশন ফান্ডের পরিচালক ন্যাটালি কানেম এক যৌথ বিবৃতিতে জানিয়েছেন, দক্ষিণ সুদানের সশস্ত্র হামলাকারীরা উত্তরাঞ্চলীয় শহর বেনটিউয়ের কাছে হামলা চালায়। হামলাকারীদের অধিকাংশের পরনে ইউনিফর্ম ছিল।

‘এ ঘৃণ্য হামলা’র নিন্দা জানিয়ে দুষ্কৃতকারীদের বিচার নিশ্চিত করতে দক্ষিণ সুদান কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে সংস্থা তিনটি। সংস্থা তিনটি জানায়, অধিকাংশ যৌন সহিংসতার ঘটনার বিষয়েই কোন আনুষ্ঠানিক অভিযোগ করা হয় না। তাই প্রকৃত ধর্ষণের ঘটনা সংখ্যায় অনেক বেশি।

গত ৪ বছর আগে (২০১৩ সাল) যুদ্ধ শুরুর পর থেকে দক্ষিণ সুদানের যৌন সহিংসতা ভয়াবহ রূপ নিয়েছে। জাতিসংঘ এক বিবৃতিতে জানায়, দক্ষিণ সুদানে চলতি বছরের প্রথম অর্ধেক সময়ে ২ হাজার ৩০০ ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এদের অধিকাংশই তরুণী ও কিশোরী। এছাড়াও এ আক্রান্তদের ২০ শতাংশের বেশিই শিশু।