menu

যেভাবে খুন করা হয় আবরারকে

    সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
  • ঢাকা , বুধবার, ০৯ অক্টোবর ২০১৯

গত রোববার ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী রাত ৮টার দিকে বুয়েটের শেরেবাংলা হলের ১০১১ নম্বর কক্ষ থেকে আবরারকে ডেকে নিয়ে যায়। এরপর রাত ২টা পর্যন্ত তাকে খুঁজে পাওয়া যায়নি। তারা বলছেন, ২০১১ নম্বর রুমে নিয়ে তাকে দফায় দফায় পেটানো হয়। মারধরের সময় ওই কক্ষে উপস্থিত ছিলেন বুয়েট ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক আশিকুল ইসলাম বিটু। তিনি বলেন, আবরারকে শিবির সন্দেহে রাত আটটার দিকে হলের ২০১১ নম্বর কক্ষে ডেকে আনা হয়। সেখানে আমরা তার মোবাইলে ফেসবুক ও মেসেঞ্জার চেক করি। ফেসবুকে বিতর্কিত কিছু পেইজে তার লাইক দেয়ার প্রমাণ পাই। সে কয়েকজনের সঙ্গে যোগাযোগও করেছে। শিবির সংশ্লিষ্টতার প্রমাণ পাই।

আবরারকে জিজ্ঞাসাবাদ করে ২০১১ নম্বর রুমের সদস্য বুয়েট ছাত্রলীগের উপদফতর সম্পাদক ও কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মুজতবা রাফিদ, উপসমাজসেবা সম্পাদক ইফতি মোশাররফ সকাল, উপআইন সম্পাদক অমিত সাহা। পরবর্তীতে প্রমাণ পাওয়ার পর চতুর্থ বর্ষের ভাইদের খবর দেয়া হয়। খবর পেয়ে বুয়েট ছাত্রলীগের ক্রীড়া সম্পাদক মেফতাহুল ইসলাম জিয়ন, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক অনিক সরকার সেখানে আসেন। একপর্যায়ে আমি রুম থেকে বের হয়ে আসি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক শিক্ষার্থী জানান, ২০১১ নম্বর রুমে নেয়ার পরেই আবরারকে দফায় দফায় মারধর করা হয়। একপর্যায়ে লাঠি, ক্রিকেট খেলার স্ট্যাম্প, চাপাতি দিয়ে বেধরক পিটানো হয় তাকে। হলের সিসিটিভি ফুটেজে রয়েছে লোমহর্ষক হত্যাকাণ্ডের আদ্যপ্রাপ্ত। যেখানে মারধরের পর ফাহাদকে অচেতন অবস্থায় নিয়ে যেতে দেখা যায় হলের ৪ জন ছাত্রলীগ নেতাকর্মীকে। যাদের পেছনে হেটে যাচ্ছিল আরও ৫ জন। ফুটেজটি এখন পুলিশ যাচাই-বাছাই করছে। অচেতন হয়ে পড়লে তাকে ১ম ও ২য় তলার সিড়িতে ফেলে রাখা হয়। পরে এক শিক্ষার্থী তাকে পড়ে থাকতে দেখে বুয়েটে দায়িত্বরত চিকিৎসক মাসুদ এলাহীকে খবর দিলে তিনি মেডিকেল টেস্টের পর আবরারকে মৃত ঘোষণা করেন। এরপর ময়নাতদন্তের জন্য লাশ ঢামেক মর্গে পাঠানো হয়।

আবরারের সহপাঠীরা বলেছেন, সিসি ক্যামেরা ফুটেজ দেখলেই হত্যার রহস্য উন্মোচিত হবে। তাদের দাবি, বাংলাদেশ-ভারত চুক্তি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে পোস্ট করায় আবরারকে হত্যা করা হয়েছে। নিহতের মামাতো ভাই আবু তালহার দাবি, শিবির তকমা দিয়ে রুম থেকে ডেকে নিয়ে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরাই আবরারকে পিটিয়ে হত্যা করে। আরেক মামাতো ভাই মো. জহিরুল ইসলাম জানান, ইঞ্জিনিয়ারিং পাশ করে বিদেশ যাওয়ার স্বপ্ন ছিল। কোন ছাত্র রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিল না সে। সবসময় শান্তশিষ্ট থাকায় তার কোন শত্রুও ছিল না।

বিচারের দাবিতে সরব ফেসবুক : আবরার নিহতের ঘটনায় ফেসবুক ব্যবহারকারী শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন পেশার মানুষরা ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। সোমবার সকালে আবরারের লাশ উদ্ধারের পর এই হত্যাকাণ্ডের বিচারের দাবিতে সোচ্চার রয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমগুলো। আবরারকে কোথায় ডেকে নেয়া হয়, কখন ডেকে নেয়, কারা ডেকে নেয় সবকিছুই বেরিয়ে আসছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থী ও ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের প্রধান শরিফুল হাসান ফেসবুকে লেখেন, ‘বুয়েট ছাত্র আবরারের অপরাধটা কী? আমি তো বলব আরেকটা বিশ্বজিতের ঘটনা ঘটল। পার্থক্য হলো বিশ্বজিতকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে, আর আবরারকে বুয়েটের হলে। এছাড়া তো আমি কোন পার্থক্য দেখি না। দু’জনকেই শিবির সন্দেহে বর্বরভাবে নির্যাতন করে হত্যা করা হলো। দু’জনই সাধারণ গরিব পরিবার থেকে উঠে আসা। কারও অপরাধ থাকলে পুলিশ, প্রশাসন আছে কেন? আমি বিশ্বজিতের মতো আবরার হত্যারও বিচার চাই। কারা এই হামলাকারী খুঁজে বের করে কঠোর শাস্তি দেয়া হোক।’

বুয়েটে নির্মম নির্যাতনের ঘটনা প্রথম নয়

ছাত্রলীগ কর্মীর সঙ্গে গালাগালিকে কেন্দ্র করে শেরেবাংলা হলের ২০২নং রুমের ১৫ ব্যাচের ইইই বিভাগের এক শিক্ষার্থীকে (নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক) গত ৩ অক্টোবর রাত ১০টার দিকে নিজেদের রুমে ডেকে নিয়ে যায় ছাত্রলীগ কর্মীরা। সেখানে তার বাকবিতণ্ডা হয়। এরপর রাত আড়াইটার দিকে ১৫ ও ১৬ ব্যাচের ছাত্রলীগের কর্মীরা ২০২নং রুমে এসে তাকে প্রচণ্ড মারধর করে। এতে বুয়েট ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মেহেদী হাসান রবিন (কেমিক্যাল ১৫), গ্রন্থনা ও প্রকাশনা সম্পাদক ইসতিয়াক আহমেদ মুন্না (মেকা ১৫), উপসমাজসেবা বিষয়ক সম্পাদক ইফতি মোশাররফ সকাল (বায়োমেডিকেল ১৬), সহ-সম্পাদক ফারহান জাওয়াদ চৌধুরী (ইইই ১৬), সাহিত্য সম্পাদক মনিরুজ্জামান মনির (১৬) নেতৃত্ব প্রদান করে। তারপর ১৫ ব্যাচের ওই শিক্ষার্থী হল থেকে চলে যায়। এরপর রাত সাড়ে ৩টার টার দিকে ১৭ ব্যাচের জেমির নেতৃত্বে ওই শিক্ষার্থীর সব জিনিস ভাঙচুর করা হয়। পরবর্তীতে ছাত্রলীগের ১৭ ব্যাচের জেমির নেতৃত্বে ৫ অক্টোবর রাতে আবার এসে তার কম্পিউটারসহ বাকি সরঞ্জাম নিয়ে যাওয়া হয়।

  • আবরার হত্যা

    বিক্ষুব্ধ বাংলাদেশ

    newsimage

    পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে নোয়াখালী প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন-সমাবেশে মিলিত হয়। আধা ঘণ্টাব্যপী ওই কর্মসূচিতে নোবিপ্রবির বিশ্ববিদ্যালয়, মহিলা

  • আবরাবের দাফন

    ‘আমার বেটা লাখে একটাও হয় না রে...’

    কুষ্টিয়ায় শোকের মাতম

    কুষ্টিয়ায় নিজ গ্রাম কুমারখালীর কয়া ইউনিয়নের রায়ডাঙ্গা গ্রামে বুয়েটছাত্র আবরার ফাহাদের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল সকাল ১০টায় কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দানে বিপুলসংখ্যক মানুষের উপস্থিতিতে আবরারের তৃতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। পরে পারিবারিক কবরস্থানে আবরার ফাহাদের

  • কারও সঙ্গে তর্কও করত না আবরার

    বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী নিহত আবরার ফাহাদ শেরেবাংলা হলের ১০১১ নম্বর রুমে থাকতেন। সেখান থেকে ডেকে নিয়ে হলের ২০১১ নম্বর কক্ষে পেটানো হয় তাকে। পরে হলের

  • সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ক্ষোভের ঝড়

    বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় ফেসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগযোগমাধ্যমে নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছে বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ। দেশ এবং দেশের বাইরে থেকে

  • বিশ্ব গণমাধ্যমে আবরার হত্যা

    বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনা দেশজুড়ে ব্যাপক আলোড়ন তৈরি করেছে। এ ঘটনা বিশ্বগণমাধ্যমেও

  • ক্যাম্পাসে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ

    বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে গত রোববার রাতে পিটিয়ে হত্যা করে বুয়েট ছাত্রলীগের একদল নেতাকর্মী। আবরারের এমন মৃত্যুতে শোকে মুহ্যমান সবাই। আবরারের এমন নৃশংস

  • আবরার হত্যায় গ্রেফতার ১৩

    আরও ৫ জনকে ধরতে অভিযান চলছে

    প্রকৌশলী বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী ছাত্র আবরার আহমেদকে নৃশংসভাবে পিটিয়ে হত্যায় জড়িত মোট ১৩ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এদের মধ্যে ১০ জনকে গ্রেফতার করা হয় সোমবার। ৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়

  • বিবিসি বাংলার প্রতিবেদন

    ছাত্রলীগের খুন, নির্যাতন নৃশংসতার কাহিনী

    বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের একাধিক নেতা গ্রেফতারের খবর প্রকাশিত হওয়ার

  • ক্ষুব্ধ সাধারণ মানুষ

    বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদকে নির্মমভাবে পিটিয়ে হত্যা করায় বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ তীব্র ক্ষোভ ও ক্ষৃণা প্রকাশ করছে। গতকাল সারাদেশে সাধারণ পানের দোকান থেকে শুরু করে সব মহলে আলোচনার বিষয় ছিল আবরার

  • মহাবিশ্বের গঠন নিয়ে নতুন পাঠ

    পদার্থবিদ্যায় তিন বিজ্ঞানীর নোবেল জয়

    newsimage

    মহাবিশ্বের গঠন ও ক্রমবিকাশের পাঠে নতুন আলোর সঞ্চার করার পাশাপাশি সৌরজগতের বাইরে সূর্যের মতো নক্ষত্র ঘিরে আবর্তনরত প্রথম গ্রহ আবিষ্কারের স্বীকৃতিতে চলতি বছর পদার্থবিদ্যায় নোবেল পেয়েছেন তিন বিজ্ঞানী। তারা হলেন যুক্তরাষ্ট্রের