menu

প্রতিক্রিয়া

একতরফা নির্বাচনের তফসিল

বিএনপি

    সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
  • ঢাকা , শুক্রবার, ০৯ নভেম্বর ২০১৮

সরকারের ইচ্ছায় একতরফা নির্বাচন করার জন্য নির্বাচন কমিশন তফসিল ঘোষণা করেছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, এতে জনগণের আশা, আকাক্সক্ষার প্রতিফল হয়নি। গতকাল সন্ধ্যায় একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর গুলশানে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। মহাসচিব বলেন, একাদশ সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে সংলাপের পথ ধরে রাজনৈতিক সমঝোতার আগেই তফসিল ঘোষণা করা হয়েছে। আমরা যা বলব রাজশাহীতে শুক্রবারের সমাবেশেই বলব।

গতকাল সন্ধ্যায় একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদা। তিনি বলেন, আগামী ২৩ ডিসেম্বর নির্বাচনে ভোটগ্রহণ করা হবে। তিনি জানান, মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন ১৯ নভেম্বর, মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই ২২ নভেম্বর এবং প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২৯ নভেম্বর।

তফসিল ঘোষণার পর বিএনপি মহাসচিব বলেন, এটি সরকারের ইচ্ছার একতরফা নির্বাচনের তফসিল। এই তফসিলে জনগণের আশা-আকাক্সক্ষার প্রতিফলন হয়নি। তিনি বলেন, একাদশ সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে সংলাপের পথ ধরে রাজনৈতিক সমঝোতার আগেই তফসিল ঘোষণা করা হয়েছে। আমরা যা বলব রাজশাহীতে যে সমাবেশ হবে সেখানেই বলব।

এর আগে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্যদের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। বৈঠকে খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবি জানানো হয়েছে বলে জানান তিনি। পরে নির্বাচনে অংশ নেয়া না নেয়ার ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে গতকাল গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেছেন ২০ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতারা। জোটের শরিক লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির চেয়ারম্যান কর্নেল ড. অলি আহমদ বৈঠকে সভাপতিত্ব করন। বৈঠকে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, জামায়াতের কর্মপরিষদ সদস্য মো. আবদুল হালিম, কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহীম, বিজেপির চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার আন্দলিব রহমান পার্থ, জাগপার ব্যারিস্টার তাসমিয়া প্রধান, লেবার পার্টির মোস্তাফিজুর রহমান ইরানসহ ২০ দলের শীর্ষ নেতারা উপস্থিত ছিলেন। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত বৈঠকটি চলছিল।